বাংলাদেশ, রাজনীতি



দেশদর্পণ ডেস্ক

২০ অক্টোবর ২০১৭, ২:৪০ অপরাহ্ণ




‘নির্বাচনে সেনা মোতায়নের বিরোধী নয় আওয়ামী লীগ’

দেশদর্পণ ডেস্ক :: জাতীয় সংসদ নির্বাচনে সেনাবাহিনী মোতায়েনের বিরোধীতায় আওয়ামী লীগ নয় বলে মন্তব্য করেছেন দলটির সাধারণ সম্পাদক এবং সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের। তিনি বলেছেন, ‘আমরা কখনো বলিনি, আমরা সেনাবাহিনী মোতায়েনের বিরুদ্ধে। আমরা বলেছি, নির্বাচন কমিশন, প্রধান নির্বাচন কমিশনার যদি মনে করেন, তাহলে আইন অনুযায়ী সেনাবাহিনী মোতায়েন করবে। আমরা কখনো বলিনি যে সেনাবাহিনী মোতায়েন করা যাবে না।’

আজ শুক্রবার (২০ অক্টোবর) রাজধানীর গুলশানের ইয়ুথ ক্লাব মাঠে ঢাকা মহানগর উত্তর আওয়ামী লীগের সদস্য সংগ্রহ ও নবায়ন অনুষ্ঠানে তিনি এসব কথা বলেন।

ওবায়দুল কাদের বলেন, বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়া বারবার আদালতের কাছ থেকে সময় নিয়ে আদালতকে হেনস্তা করছেন। বারবার আদালতে অনুপস্থিত থেকে, বারবার আদালতের কাছ থেকে সময় নিয়ে তিনি (খালেদা জিয়া) বিচারকাজকে বিলম্বিত করছেন।

 

আইনের প্রতি বিএনপির শ্রদ্ধা নেই মন্তব্য করে তিনি বলেন, আদালত প্রাঙ্গণে বিএনপিপন্থী আইনজীবীদের হাতাহাতির মাধ্যমে প্রমাণিত হয়, আইনের প্রতি তাঁদের শ্রদ্ধা নেই। আজ শুক্রবার সকালে রাজধানীর গুলশানের ইয়ুথ ক্লাব মাঠে ঢাকা মহানগর উত্তর আওয়ামী লীগের সদস্য সংগ্রহ ও নবায়ন অনুষ্ঠানে তিনি এ কথা বলেন।

দেশের অনেক গণমাধ্যম আওয়ামী লীগের প্রতি সুবিচার করছে না বলে অভিযোগ করেন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক। তিনি বলেন, ‘আমাদের নেত্রী দেশরত্ন শেখ হাসিনাকে আপনারা সংবর্ধনা জানিয়েছেন, সংবর্ধনায় আমাদের কোনো নেতা-কর্মী কি রাস্তায় এসেছে? কেউ রাস্তায় এসেছে? তাদের (বিএনপি) যা উপস্থিতি, এর চেয়ে বেশি ছিল আমাদের নারীদের উপস্থিতি। তারপরও কেউ রাস্তা অবরোধ করে স্লোগান তুলে আমাদের নির্দেশ কেউ অমান্য করেনি।’

এ সময় সাংবাদিকদের উদ্দেশে ওবায়দুল কাদের বলেন, ‘আমাদের কিছু কিছু বিষয়, আজকে যদি এটা আওয়ামী লীগের হতো, তাহলে বলত রাস্তায় সীমাহীন জনদুর্ভোগ। আওয়ামী লীগের বেলায় বড় বড় এ ধরনের রিপোর্ট করে, আর গতকাল দেখলাম সেটা তারা ভুলে গেছে।’ তিনি বলেন, ‘কারও কারও বেলায় জনদুর্ভোগকেও তারা গ্রাহ্য করে না, আওয়ামী লীগ হলে বলে দুর্ভোগ সৃষ্টি করেছে। আওয়ামী লীগের বেলায় পান থেকে চুন খসলে বিশাল নিউজ আওয়ামী লীগের বিরুদ্ধে। আমি সাংবাদিকতা করেছি- আমি কখনো মিডিয়াকে আক্রমণ করে কথা বলি না, শুধু বলব সুবিচার করবেন। আমাদের প্রশংসা লিখবেন, সমালোচনা করবেন, গঠনমূলক সমালোচনা শুদ্ধ করে। পক্ষপাতিত্ব করা, এটা বোধ হয় সঠিক নয়।’

গণমাধ্যমকে সত্য বলার আহ্বান জানিয়ে সেতুমন্ত্রী বলেন, ‘আমাদের বিরুদ্ধের বিষয় বলুন, আমরা স্বাগত জানাই। কিন্তু জনদুর্ভোগ আমরা করিনি, সে কথার কেউ প্রশংসা করেনি। জনদুর্ভোগ শেখ হাসিনার জনসভায় হয়নি। কিন্তু পরশু দিন যে জনদুর্ভোগ হলো, সেটা অনেকেই চেপে গেছেন। এটা তো সুবিচার নয়, এটা তো বস্তুনিষ্ঠ সাংবাদিকতা নয়, এটাতে আমার একটু কষ্ট লাগল, সে জন্য বলেছি।’

এই ক্যাটাগরীর আরো খবর