দেশদর্পণ ডেস্ক

৮ নভেম্বর ২০১৭, ২:০৬ অপরাহ্ণ




দোষ নিজের কাধে নিলেন মাশরাফি

দেশদর্পণ ক্রীড়া :: খেলার ১৭তম ওভার চলছে। ম্যাচে টানটান উত্তেজনা। চিটাগাং ভাইকিংসের পেসার শুভাশীষ রায়ের একটি ইয়র্কর লেন্থের বল ঠেকালেন রাইডার্স অধিনায়ক মাশরাফি। বল ধরে স্টাম্পে ছোঁড়ে মারার ভঙ্গি করলেন শুভাশীষ। মাশরাফি তাকে বোলিং প্রান্তে ফেরার ইঙ্গিত করতেই রেগেমেগে তেড়ে এলেন। তাকে আটকাতে এগিয়ে এলেন ফিল্ডার আম্পায়াররা। তাতেও কমলো না শুভাশীষের গর্জন। এমন দৃশ্যে হতবাক সবাই। ম্যাচ শেষে মাশরাফি অবশ্য বিষয়টাকে হালকা করতে চাইলেন। জানালেন, তারই নাকি শুভাশিসকে ‘সরি’ বলা উচিত ছিল।

ম্যাচে অবশ্য শেষপর্যন্ত রংপুর রাইডার্স ১১ রান ব্যবধানে হেরে গেছে চিটাগাং ভাইকিংসের কাছে। তবে ম্যাচ ছাপিয়ে সংবাদ সম্মেলনে এ ঘটনাই যেন হয়ে উঠলো মুখ্য। মাশরাফি বলেন , ‘ম্যাচের গুরুত্বপূর্ণ সময়ে এরকম হয়। এটা সিরিয়াস কিছু নয়।’

মাশরাফি সিরিয়াস মনে না করলেও সংবাদ সম্মেলনে বারবার ঘুরেফিরে এসেছে এ প্রসঙ্গ। বাংলাদেশের ইতিহাসের সবচেয়ে সফল অধিনায়কের উত্তর আরও পরিণত, ‘আমি মনে করি আমার তাকে সরি বলা উচিত। আর যেটা বললাম ম্যাচের মধ্যে এটা হয়ে যায়। অবশ্যই ওর জায়গা থেকে আমি মনে করি ঠিক আছে কারণ সেও জিততে চাইবে আমিও চাইব।’ মাশরাফি জানালেন সিনিয়র হিসেবে তারই নাকি শান্ত থাকা উচিত ছিল, ‘ ও আমার ছোট তাই ওই সময় আমার মাথা ঠাণ্ডা রাখলে ভালো হত। কিন্তু এমন সিরিয়াস কিছু হয়নি। আমি জানিনা ওর কি করা উচিত ছিল। কিন্তু সিনিয়র হিসেবে আমারও মাথা ঠাণ্ডা রাখলে ভাল হত।’

ওভার শেষে অবশ্য মাশরাফিকে বেশ কয়েকবার সরি বলার চেষ্টা করেছেন শুভাশিস। ১৬ বছর আগে এই দিনেই আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে পা রেখেছিলেন মাশরাফি। দেখেছেন অনেক উত্থান-পতন। সেসব নিয়েও ছোট করে কথা বলেছেন মাশরাফি। জানিয়েছেন সুখের ঘটনাই বেশি। তবে বর্তমান তরুণ ক্রিকেটারদের আচরণে এসেছে অনেক বদল। মুখে প্রকাশ না করলেও তাতে হয়ত আক্ষেপ আছে টাইগার অধিনায়কের।

ঘটনার ভিডিও চিত্র-

https://youtu.be/D4fEuzKarwI

এই ক্যাটাগরীর আরো খবর