রাজনীতি



দেশদর্পণ ডেস্ক

২৬ মার্চ ২০১৮, ৩:৩৩ পূর্বাহ্ণ




কারও সাজা হলে হাইকোর্ট জামিন দেয় কিন্তু আমার হচ্ছে না কেন: খালেদা জিয়া

দেশদর্পণ ডেস্ক :: সুপ্রিম কোর্ট বার অ্যাসোসিয়েশনের সাধারণ সম্পাদক ব্যারিস্টার মাহবুব উদ্দিন খোকন বলেছেন, বেগম খালেদা জিয়া আমাদের কাছে জানতে চেয়েছেন ‘কারও সাজা হলে হাইকোর্ট জামিন দিয়ে দেয়, কিন্তু আমার জামিন হচ্ছে না কেন? হাইকোর্টও (জামিন) দেরি করছে, আপিল ডিভিশনও স্থগিত করেছে, কেন?’

রোববার সন্ধ্যায় নাজিম উদ্দিন রোডের পুরনো কেন্দ্রীয় কারাগারে খালেদা জিয়ার সঙ্গে সাক্ষাত শেষে কারা ফটকে সাংবাদিকদের তিনি এ কথা বলেন।

খোকন বলেন, ‘ম্যাডামের জামিন না হওয়ার কোনো কারণ আমরা জানাতে পারিনি।’

অ্যাডভোকেট মাহবুব উদ্দিন খোকন বলেন, ‘নেত্রীর সঙ্গে আইন ও মামলার বিষয়ে আমাদের আলোচনা হয়েছে তবে রাজনৈতিক কোনও আলোচনা হয়নি। আমরা তাকে আশ্বস্ত করেছি দেশে যদি আইনের শাসন থাকে তাহলে এই স্বৈরসরকার মামলা দিয়ে আপনাকে আটকে রাখতে পারবে না। আপনি কারাগার থেকে মুক্তি পাবেন।’

কারগারে খালেদা জিয়ার শারীরিক অবস্থা কেমন আছে এমন প্রশ্নের জবাবে আরেক আইনজীবী জয়নুল আবেদিন বলেন, ‘তার শারীরিক অবস্থা অনেক ভালো। মনোবলও চাঙ্গা রয়েছে। আমরা সিনিয়র আইনজীবীরা আলাপ আলোচনা করে মামলাগুলো পরিচালনা করছি। তাকে জানিয়েছি, আমরা আশা করি আইনি লড়াইয়ের মাধ্যমেই আপনাকে মুক্ত করবো।’

এ সময় আরও উপস্থিত ছিলেন ব্যারিস্টার জমির উদ্দিন সরকার, আবদুর রেজাক খান, অ্যাডভোকেট মাহবুব হোসেন এবং এ জে মোহাম্মদ আলী।

উল্লেখ্য, গত ৮ ফেব্রুয়ারি বিশেষ জজ আদালত জিয়া অরফানেজ ট্রাস্ট মামলায় রায় ঘোষণা করেন। রায়ে বিএনপি চেয়ারপারসন ও সাবেক প্রধানমন্ত্রী খালেদা জিয়াকে পাঁচ বছর এবং সিনিয়র ভাইস চেয়ারম্যান তারেক রহমান, মাগুরার সাবেক সংসদ সদস্য (এমপি) কাজী সালিমুল হক কামাল, ব্যবসায়ী শরফুদ্দিন আহমেদ, প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়ের সাবেক সচিব কামাল উদ্দিন সিদ্দিকী ও প্রয়াত রাষ্ট্রপতি জিয়াউর রহমানের ভাগনে মমিনুর রহমানকে ১০ বছর করে কারাদণ্ডাদেশ এবং দুই কোটি ১০ লাখ টাকা করে জরিমানা করা হয়।

রায় ঘোষণার পর থেকে নাজিমউদ্দিন রোডের পুরাতন কেন্দ্রীয় কারাগারে বন্দি আছেন বিএনপি চেয়ারপারসন ও সাবেক প্রধানমন্ত্রী খালেদা জিয়া।

এই ক্যাটাগরীর আরো খবর